বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার নিয়ম অনুযায়ী নিয়োগ চায় বামেলটেকসো

বাংলাদেশ মেডিকেল ল্যাবরেটরি টেকনোলজিষ্ট সোসাইটি কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য-সচিব মোঃ সাজ্জাদ হোসেন বিপ্লব বলেন যেখানে সারা পৃথীবিতে WHO য়ের নিয়ম মেনে মেডিকেল টেকনোলজিষ্ট নিয়োগ প্রদান করা হয় সেখানে বাংলাদেশে মেডিকেল টেকনোলজিষ্টরা অনেকটাই অবহেলিত, বিগত ১২ বছর মেডিকেল টেকনোলজিষ্ট নিয়োগ নাই এতে করে ব্যাহত হচ্ছে রোগ নির্ণয়ের কাজ, রোগীরা ঠিক মতো রিপোর্ট পাচ্ছে না নিয়মিত টিভি চ্যানেল গুলোতে দেখতে পাচ্ছেন, যদি WHO য়ের নিয়ম অনুযায়ী মেডিকেল টেকনোলজিষ্ট নিয়োগ প্রদান করা হতো তাহলে হয়তো এমনটি হতো না। তিনি আরো বলেন, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা নীতিমালা অনুযায়ী ১ঃ৩ঃ৫। মানে ১ জন ডাক্তার, ৩ জন নার্স, ৫জন মেডিকেল টেকনোলজিস্ট। যেখানে বাংলাদেশে ৭০ হাজার ডাক্তার আছে তার বিপরীত WHO নীতি অনুযায়ী টেকনোলজিস্ট প্রয়োজন ৩ লক্ষ ৫০ হাজার। অথচ বাংলাদেশে টেকনোলজিষ্ট পদ আছে ৯ হাজার। বর্তমানে নিয়োগ প্রাপ্ত আছেন
৩ হাজার ৫ শত।
তাহলে বাংলাদেশে রোগ নির্ণয় হবে কি ভাবে..?
ভালো চিকিৎসা পাবেন কি ভাবে..?
গরীব, দিনমজুর রোগীরা তো আর মাদ্রাজ,সিংগাপুর চিকিৎসা নিতে পারে না তবে কি সঠিক রোগ নির্ণয় ও চিকিৎসা হতে বঞ্জিত হবে?
চিকিৎসা একটা মৌলিক অধিকার সর্বসাধারনের। সর্বসাধারণের চিকিৎসা সেবা যথাযথ ভাবে প্রদানে মেডিকেল টেকনোলজিষ্ট নিয়োগ প্রদান করা অত্যাবশ্য।
মেডিকেল টেকনোলজিষ্টদের দের
১২ বছর যাবত সরকারি নিয়োগ নাই অথচ এই মেডিকেল টেকনোলজিষ্ট রাই করোনা ভাইরাস এর প্রথম সারির যোদ্ধা এরাই করোনা ভাইরাস সহ সকল রোগের জন্য নমুনা সংগ্রহ থেকে শুরু করে পরীক্ষা নিরিক্ষা করে রিপোর্ট প্রদান করে থাকেন। বাংলাদেশ কারিগরি শিক্ষাবোর্ড ও রাষ্ট্রীয় চিকিৎসা অনুষদ ডিপ্লোমা ইন মেডিকেল টেকনোলজিষ্ট কোর্স পরিচালনা করছেন সরকারি বেসরকারি মিলে ডিপ্লোমার প্রতিষ্ঠান আছে ১২০ প্লাস, আর বিএসসি মেডিকেল টেকনোলজিষ্ট কোর্স গুলো পরিচালনা করছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়, চট্রগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় উক্ত প্রতিষ্ঠান থেকে পাশকৃত লক্ষ প্লাস ছাত্র ছাত্রী আজ বেকার মানবেতর জীবনজাপন করছেন। দেশের এই ক্রান্তিলগ্নে এই মেধাবী মেডিকেল টেকনোলজিষ্টদের কাজে লাগিয়ে WHO য়ের TEST TEST TEST নিতির বাস্তবায়নের জোর দাবি জানাচ্ছি।

One Reply to “বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার নিয়ম অনুযায়ী নিয়োগ চায় বামেলটেকসো”

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *